বাংলাদেশ, শুক্রবার, ২৬শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং, ১৩ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ।

প্রধামন্ত্রীর জন্মদিনে শিশু আরেফিনের খোলা চিঠি

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী,
আমার সালাম নেবেন। আমি মোঃ শাহানুর আরেফিন, বয়স আট, ধরে নিন, আপনার ছোট ভাই শেখ রাসেলের মতো একজন।
আজ ২৮ সেপ্টেম্বর, আপনার শুভ জন্মদিনে আপনাকে লিখছি। আমার বাড়ী কক্সবাজারের কুতুবদিয়া দ্বীপে। আমার বাবা বিদ্যালয়বিহীন দক্ষিণ মুরালিয়া গ্রামে একটা প্রাইমারী স্কুল করে প্রত্যন্ত দ্বীপাঞ্চলের অনগ্রসর শিক্ষাবঞ্চিত শিশুদের পড়াশোনার ব্যবস্থা করেছেন। আমিও ঐ স্কুলে প্রথম শ্রেণীতে ভর্তি হয়েছিলাম। কিন্ত প্রায় প্রতিবছরের ঘূর্ণিঝড় ও জলোচ্ছ্বাসের কারণে আমাদের স্কুলে সারাবছর ভালোমতো ক্লাস করা যায় না। তাই বাবা আমাকে চট্টগ্রাম শহরে এনে ভর্তি করে দিয়েছেন। ফলে আমার প্রিয় দাদী, সবুজ গ্রাম,নারকেল গাছের সারি, পুকুর-নদী, মাঠ-ঘাট, চাচাতো ভাই-বোন, শৈশবের বন্ধুদের কাছ থেকে এক প্রকার দূরে পড়ে আছি।
আমার মা-বাবা দু’জনেই চট্টগ্রাম জজ কোর্টের আইনজীবী। আমার বাবা গত ১৯৮৮ সালের চব্বিশে জানুয়ারী চট্টগ্রামে সংগঠিত গণহত্যা বিষয়ে ‘চট্টগ্রাম গণহত্যা স্মারক’ নামে একটা দুর্লভ সংকলন করেছেন, আর দিন-রাত চব্বিশ ঘন্টা ঐ বই নিয়ে পড়ে আছেন। যেখানে সেদিন চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতিতে আপনার বক্তৃতারত ছবি, সাংবাদিক সম্মেলন, চট্টগ্রাম হাসপাতালে আহতদের দেখতে যাওয়া, ঐ ঘটনার প্রতিবাদে উত্তাল সারাদেশ, আপনাকে বহনকারী যে ট্রাক লক্ষ্য করে সেদিন পুলিশ সরাসরি গুলি চালিয়েছিল সে’সব ছবি ও তখনকার পত্র-পত্রিকায় প্রকাশিত প্রতিবেদন সংকলিত হয়েছে। কিন্তু মা-বাবা দু’জনে গত এক বছরে শত চেষ্টা করেও সেই দূর্লভ সংকলন আপনার হাতে পৌঁছাতে পারেন নি। এই এক দুঃখ।
আমার বাবা প্রায় প্রতি শুক্রবার সকালে কুতুবদিয়া দ্বীপে গ্রামে চলে যান। মাঝে মাঝে আমাকেও আমার দাদীর পরশ পেতে, সাঁতার শেখাতে, গাছে উঠা শেখাতে, প্রকৃতির সাথে মিশতে, গ্রামের খোলামেলা পরিবেশে বেড়াতে নিয়ে যান। সত্যি, অপূর্ব-অপরূপ-অতুলনীয় আমার গ্রাম। আপনি যদি কোনভাবে আমার বাবার স্কুলটাকে সরকারী করে ঘূর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র বানিয়ে দেন তা’হলে আমি আবার ঐ স্কুলে ভর্তি হবো এবং আমার সহজ-সরল-সুন্দর-সাহসী দাদী, অবারিত মাঠ-ঘাট-পুকুর-নদী, বন্ধু-বান্ধব, শৈশব স্মৃতি সবকিছু ফিরে পাবো।

ইতি
আরেফিন
এস/ও- এড. রফিকুল আহসান ও
এড. নুসরাত আরা রফিক
চেম্বার# ২০১৭, জজ কোর্ট, চট্টগ্রাম।
বাবার মোবাইল নং- ০১৮১৯-৬২৯৮৬১

আরো খবর

Leave a Reply