বাংলাদেশ, শনিবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ইং, ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ।

বশরুজ্জমান চৌধুরী স্বাধীনতা যুদ্ধে চট্টলার প্রথম শহীদ ছিলেন

“চট্টল জনপদের জনন্দিত নেতা, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ এর প্রয়াত প্রেসিডিয়াম সদস্য মরহুম আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবুর কনিষ্ঠ ভ্রাতা শহীদ বশরুজ্জমান চৌধুরী মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে বীর চট্টলার প্রথম শহীদ ছিলেন। এই মহান শহীদের নামে প্রতিষ্ঠিত আমাদের প্রিয় বিদ্যালয়। যে বিদ্যালয় মেধার আলো জ্বালিয়ে চলেছে বরুমচড়ার প্রজন্ম থেকে প্রজন্মোত্তর। মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বরুমচড়া গড়তে শহীদ বশরুজ্জমান বরুমচড়ার আগামী প্রজন্মের চেতনার মশাল হয়ে থাকবেন। আজ লালদিঘী পাড়স্থ জেলা পরিষদ মার্কেটের ২য় তলায় বশরুজ্জমান ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে মহান মুক্তিযুদ্ধে বীর চট্টলার প্রথম শহীদ বশরুজ্জমান চৌধুরীর শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত স্মরণসভা ও দোয়া মাহফিলে পরিষদের সম্মানিত কার্যকরী সদস্য, রাজনীতিবিদ আজাদ সিকদারের সভাপতিত্বে পরিষদের সমন্বয়ক মাউসুফ উদ্দিন মাসুমের সঞ্চালনায় আনোয়ারা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, পরিষদের আহ্বায়ক জনাব আলহাজ্ব তৌহিদুল হক চৌধুরী প্রধান অতিথির বক্তব্যে শহীদ বশরুজ্জমান চৌধুরীকে নিয়ে স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে উল্লেখিত কথামালা তুলে ধরেন। এসময় আরো স্মৃতিচারণ করেন আনোয়ারা উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা মুজিবুর রহমান চৌধুরী, পরিষদের যুগ্ম সচিব মোঃ রশীদ মিয়া, সম্মানিত সদস্য এনামুল হক চৌধুরী তৌফিক, মহিউদ্দিন আলমগির টিটু,সালাউদ্দিন আলম লিটন, পরিষদের সহ সমন্বয়ক সাজ্জাদ হোসেন অবুজ, এলমুল বাহার শেওয়ানা, পরিষদের কার্যকরী সদস্য, বিদ্যালয়ের ২০০০ ব্যাচের শিক্ষার্থী মোঃ রফিক, ২০০৩ ব্যাচের শিক্ষার্থী মোঃ আবছার উদ্দিন, ২০০৪ ব্যাচের শিক্ষার্থী ফয়েজ সিকদার পারভেজ, রুহুল কুদ্দুস, তোফায়েল আহমদ, ২০০৫ ব্যাচের শিক্ষার্থী মোঃ মঞ্জু, ২০১৪ ব্যাচের শিক্ষার্থী আব্দুল আমীন মিনহাজ্ব ও জিয়াউল হাসান সহ প্রমুখ। স্মরণসভা শেষে শহীদ বশরুজ্জমান চৌধুরীসহ ৩০ লক্ষ শহীদের আত্মার মাগফিরাত কামনায় বিশেষ মোনাজাত করেন মাওলানা সিদ্দিক আহমদ।

আরো খবর

Leave a Reply