মে ১৭, ২০২২ ৪:৫২ অপরাহ্ণ

বোয়ালখালীর পাহাড়ে সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের আনাগোনা আতঙ্ক!

বাবর মুনাফ, বোয়ালখালী প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম জেলার বোয়ালখালী উপজেলার জ্যৈষ্ঠপুরার গহীন পাহাড়ে বেড়েছে সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের আনাগোনা। বাগানের লেবু নিয়ে যাওয়াসহ বিভিন্ন ধরণের অপরাধ কর্মকান্ড ঘটছে বোয়ালখালী-রাঙ্গুনিয়া পাহাড়ি সীমান্ত এলাকায়। এতে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন লেবু ব্যবসায়ীরা। ভান্ডালজুড়ি জ্যৈষ্ঠপুরা গুচ্ছগ্রাম থেকে রাঙ্গুনিয়া সফরভাটা গুদামঘর সড়কে প্রায়শ ছিনতাইয়ের কবলে পড়তে হচ্ছে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। এ সড়কের দোচালিয়া বড়ইতলী এলাকায় গত ১৪ নভেম্বর রাত ১০টার দিকে সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের হামলার শিকার হয়েছেন ১০জন ব্যক্তি। সন্ত্রাসীরা অস্ত্রের মুখে মোবাইল ও টাকা পয়সা হাতিয়ে নিয়েছে বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগী রাসেল। তিনি জানান, সিএনজি অটো রিকশা করে রাঙ্গুনিয়া থেকে বোয়ালখালী আসার পথে সন্ত্রাসীরা গতিরোধ করে টাকা-পয়সা ছিনিয়ে নেয়। একই কায়দায় আরো দুইটি অটোরিকশার গতি রোধ করে যাত্রীদের সবকিছু লুটে নেয়। এ সময় একটি সিএনজি অটোরিকশা পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে সন্ত্রাসীরা সেটি লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। এতে খোরশেদ নামের এক ব্যক্তি পায়ে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। এছাড়া সন্ত্রাসীদের মারধরে ৫ জন ব্যক্তি আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। গুলিবিদ্ধ খোরশেদ (৩২) চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। সে বোয়ালখালী উপজেলার অলিবেকারী এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকে। তার বাড়ি গাইবান্ধা জেলায়।

বোয়ালখালী থানার উপ-পরিদর্শক (এস আই) ফখরুল ইসলাম মিনহাজ সাংবাদিকদের জানান, রাঙ্গুনিয়ার তোফায়েল গ্রুপ এ সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে জড়িত থাকতে পারে। স্থানীয় শ্রীপুর-খরণদ্বীপ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মোকারম বলেন, রাঙ্গুনিয়া থেকে একটি সন্ত্রাসী গ্রুপ জ্যৈষ্ঠপুরার পাহাড়ি এলাকায় এসে ত্রাস সৃষ্টি করছে। তারা গত এক সপ্তাহ আগে বিভিন্ন লেবু বাগান থেকে দুই লক্ষাধিক টাকার লেবু নিয়ে গেছে। এ অবস্থায় যখন বাজারে লেবুর ভালো দাম পাওয়া যাবে তখন সন্ত্রাসীরা আরো বেপরোয়া হয়ে ওঠবে। এ ব্যাপারে প্রশাসনের কঠোর পদক্ষেপ দাবি করছি।

বোয়ালখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবদুল করিম বলেন, একটি সন্ত্রাসী দলের হামলায় কয়েকজন আহত হওয়ার খবর শুনেছি। তবে ঘটনাটি বোয়ালখালী অংশে হয়নি। তারপরও বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এ ঘটনায় যারা আহত হয়েছেন তাদের ব্যাপারেও খোঁজ খবর নেওয়া হচ্ছে। লেবু চাষী উপজেলা কৃষক লীগের যুগ্ম সাধারণ মো. মোজ্জাম্মেল হক বকুল বলেন, জ্যৈষ্ঠপুরা পাহাড়ের লেবু বাগান থেকে প্রতিরাতেই লেবু চুরির ঘটনা ঘটছে। রাঙ্গুনিয়া সীমান্ত থেকে এসে একটি গ্রুপ এ কাজ করছে বলে জানতে পেরেছি। লেবু নিয়ে যাওয়ার কারণে ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন লেবু চাষীরা। ওই দল বিভিন্ন অপরাধ কর্মকান্ড ঘটিয়ে পাহাড়ের ত্রাস সৃষ্টি করায় লেবু চাষীরা এখন আতঙ্কে রয়েছেন।

শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply