বাংলাদেশ, শনিবার, ৪ঠা জুলাই, ২০২০ ইং, ২০শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

তুমি আমি এবং

মুহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম

এই রাতে চাঁদের কান্নায় ভিজুক তুমার বারান্দা ।

জোনাকিরা আলো জ্বেলে অনশন করে,

মিছিলে আসুক আমাদের প্রেম !

আমাদের অনুচ্ছেদে নেমেছে রাজনৈতিক সংলাপ ।

সত্যি বলছি কাল আমি বিদ্রোহ করব প্রেমের !

সময়ের কোণায় বেধে গেছি এই অবেলায়।

এক মুটো শীতল দিয়ে অবসরে তুমি ।

কেটে গেছে আমাদের যৌবন ।

আমার প্রতিটা পুনজন্ম তুমার জন্য ।

কারণ রাত পেরুলেই সৃষ্টি হয় নতুন একটি পৃথিবীর ভোর!

আমি আবার ও লিখব তুমাই নিয়ে ।

অবরোধে বিচ্ছিন্ন দুর্ভিক্ষ ছড়াবে শব্দের ।

সহস্র কবি ত্যাগ করবে জীবিতদের মহল থেকে!

শুধু তুমি আমি আর একটি শব্দের গ্রহ !

শব্দের ভ্রূণে বইয়ের জমাট বাঁধা ধুলোর কষ্টে ।

তুমি আমি রাতেরি ব্যস্ত ঘুর্ণিঝড়ের অবেলায় ।

আর একবার মানুষ হয়ে ভালবাসতে চাই !

পৃথিবী খেলে যাচ্ছে ভূমিকম্পে উড়াচ্ছে উপন্যাস ।

ঋতুরা নিদ্রাই ঘুনছে কবিতার আসর ।

ঘুমন্ত আমাদের বসতভিটা !

হৃদয়ের অতল থেকে ভেসে উঠছে জল ।

চুপচাপ আমাদের শিহরণ ।

শুধু বয়ে গেছে মৃত নদীর স্রোত !

বালিকা তুমি মেঘ হয়ে আকাশে থাক ।

আমি তৃতীয় শ্রেণীতে পড়া বালক হয়ে ঘুড়ি উড়িয়ে ছুয়ার নেশাই রোজ বিকেল দেখব তুমাই ।

আমি ভিক্ষুক থেকে সন্ত্রাসী হয়ে হানা দিয়েছিলাম তুমার ভ্যানিটিব্যাগে ।

কবিতা গুলো গেছে নির্বাসনে । অতঃপর গল্পটা কয়েকটা নিষিদ্ধ শব্দের !

শেয়ার করুনঃ

আরো খবর

Leave a Reply