বাংলাদেশ, মঙ্গলবার, ২৫শে জুন, ২০১৯ ইং, ১১ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ।

আগামীকাল চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল নির্বাচন চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল দেশের একটি শীর্ষন্থানীয় চিকিৎসা হিসেবে রূপ লাভ করতে ফজলুল করিম আঞ্জুমান আরা ইসলাম-আরিফুল আমীন পরিষদকে জয়যুক্ত করার আহবান

আগামী ২০ মে শনিবার সকাল ৮টা হতে বিকাল ৪টা পর্যন্ত চট্টগ্রাম চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচন উপলক্ষে চট্টগ্রামের বিভিন্ন জায়গায় ব্যাপক প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছেন প্রফেসর ডাঃ এ এস এম ফজলুল করিম- ডাঃ আঞ্জুমান আরা ইসলাম ডাঃ মোহাম্মদ আরিফুল আমীন পরিষদ। নেতৃবৃন্দ চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ আবু হানিফ, চট্টগ্রাম কাস্টম কেয়ারিং ফরওয়াডিং এজেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি আলহাজ্ব এ.কে.এম আকতার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক আলতাফ হোসেন বাচ্চু, চট্টগ্রাম খাতুনগঞ্জ, আসাদগঞ্জ, চাক্তাই ব্যবসায়ী সমিতি, চান্দগাঁও আবাসিক এলাকা কল্যাণ সমিতি, বিপনী বিতান মার্চেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি মোহাম্মদ সাগির সহ সদস্যবৃন্দ, আগ্রাবাদ সিডিএ আবাসিক এলাকা, হালিশহর, বন্দর, খুলশি আবাসিক এলাকা কল্যাণ সমিতি, রোটারি ক্লাব অব চিটাগাং, লায়ন্স ক্লাব, বিএমএ সহ বিভিন্ন জায়গায় অবিরাম ভাবে গণসংযোগ করেন। এসময় নেতৃবৃন্দরা বলেন, গত ২৬ জানুয়ারি ২০১৩ ইং তারিখে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ৮৫০ শয্যা বিশিষ্ট একটি পূর্ণাঙ্গ বিশেষায়িত ও জেনারেল হাসপাতাল বিল্ডিংয়ের নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেছেন। বর্তমানে ব্যাজমেন্ট সহ ১৩ তলার অবকাঠামো কাজ শেষ। ৬ লক্ষ ৫০ হাজার বর্গ ফুটের এই বিশাল কার্য্যক্রম শেষ করতে ব্যায় হচ্ছে প্রায় ৫০০ কোটি টাকা। মাননীয় ভূমিপ্রতিমন্ত্রী সাইফুজামান চৌধুরী জাবেদ এর সহযোগিতায় একটি ক্যান্সার হাসপাতাল করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। ইতিমধ্যে উক্ত হাসপালের জন্য ১ কোটি টাকার অনুদান পাওয়া গেছে। এসকল উন্নয়ন প্রকল্পসহ আরো বহু উন্নয়ন পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করার জন্য স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতাকে নিশ্চিত করার মাধ্যমে অত্র প্রতিষ্ঠানের দুর্বার উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখার স্বার্থে আজীবন সদস্যদের সুচিন্তিত রায় পেলে সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টার মাধ্যমে উল্লেখিত কার্যক্রমগুলোকে সুন্দরভাবে সম্পন্ন করে এই প্রতিষ্ঠানকে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার অন্যতম সেরা বেসরকারি চিকিৎসা সেবা প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলতে প্রফেসর ডাঃ এ এস এম ফজলুল করিম- ডাঃ আঞ্জুমান আরা ইসলাম ডাঃ মোহাম্মদ আরিফুল আমীন পরিষদকে নির্বাচিত করার আহবান জানান। উল্লেখ, যত পদ তত ভোট দিতে হবে। একজন সম্মানিত ভোটার জেনারেল সেক্রেটারী পদে ১টি, জয়েন্ট জেনারেল সেক্রেটারী পদে ১টি, মেম্বার পদে ১৩টি সর্বমোট ১৫টি ভোট দেওয়া বাধ্যতামূলক। এর কমবেশী ভোট দিলে ব্যালট বাতিল হবে।

আরো খবর

Leave a Reply