বাংলাদেশ, সোমবার, ২২শে জুলাই, ২০১৯ ইং, ৭ই শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ।

কবি ও আবৃত্তিশিল্পী ইস্তেকবাল হোসেন গুরুতর অসুস্থ

কবি ও আবৃত্তিশিল্পী ইস্তেকবাল হোসেন গুরুতর অসুস্থ। স্ট্রোকে আক্রান্ত হওয়ায় ২৬ মে থেকে তিনি জয়নাল সিকদার মহিলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে চিকিৎসাধীন আছেন। তার অবস্থা কিছুটা উন্নতির দিকে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

স্বজনরা জানিয়েছেন, ইস্তেকবাল হোসেনের উন্নত চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে যোগাযোগ করা হচ্ছে।

ইস্তেকবাল হোসেন বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য। ডাকসুর ইতিহাসে ১৯৮৯ সালে সবচেয়ে বেশি ভোট পেয়ে সাহিত্য সম্পাদক নির্বাচিত হন তিনি। পেশায় আইনজীবী ইস্তেকবাল হোসেন গাজিপুর সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের প্রতিষ্ঠাতা। জাতীয় কবিতা পরিষদ এবং সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের প্রতিষ্ঠার সময়ের অন্যতম সংগঠক তিনি।
নব্বইয়ের স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের সাহসী মুখ ইস্তেকবাল হোসেন সাহিত্য পত্রিকা ‘মানবো না এ শৃঙ্খলে’ সম্পাদনা করেছেন। ৫৭ বছর বয়সী কবি ইস্তেকবাল হোসেনের দু’টি কাব্যগ্রন্থ-গেরিলা রাতের চোখ ও সারা মন দূরের দুপুর এবং দু’টি আবৃত্তির ক্যাসেট রয়েছে।

স্ট্রোকে আক্রান্ত ইস্তেকবাল হোসেনের চিকিৎসকরা তার শারীরিক অবস্থার কথা জানান মঙ্গলবার।আইসিইউ’র বাইরে তিন পুত্র-কন্যাকে নিয়ে উদ্বিগ্ন স্ত্রী শবনম। সঙ্গে ছিলেন শুভানুধ্যায়ীরা।

ইস্তেকবাল হোসেনের সুস্থতার প্রতীক্ষায় রয়েছেন সংস্কৃতি অঙ্গনের মানুষ-স্বজন এবং অগণিত শুভাকাঙ্ক্ষী।

আরো খবর

Leave a Reply