বাংলাদেশ, শনিবার, ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং, ৬ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নিরাপদ অভিবাসন নিশ্চিতে জাতীয় বাজেটে বরাদ্দ বৃদ্ধি প্রয়োজন

অভিবাসীদের বিভিন্ন হয়রানি বন্ধে সরকার ইতোমধ্যে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। ক্ষতিগ্রস্তদের আইনি সহায়তার ব্যবস্থা করেছে। বিদেশ ফেরত অসহায় কর্মীদের পুনর্বাসনে জাতীয় বাজেটে অভিবাসীদের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধির কল্পে বাজেট অধিবেশনে আলোচনা এবং প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের ভূমিকা বৃদ্ধি উদ্যোগ গ্রহণ করা উপর গুরুত্বারোপ করেন আলহাজ্ব মোঃ নজরুল ইসলাম চৌধুরী এমপি, চট্টগ্রাম-১৪। অদ্য ২৭ মে তারিখে কারিতাস নিরাপদ অভিবাসন প্রকল্প চট্টগ্রাম অঞ্চল কর্তৃক আয়োজিত শ্রম অভিবাসন : পরিপ্রেক্ষিত জাতীয় বাজেট শীর্ষক সংলাপ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
কারিতাস চট্টগ্রাম আঞ্চলিক কনফারেন্স হলে অনুষ্ঠিত এ সংলাপ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আঞ্চলিক পরিচালক জনাব, জেমস গোমেজ এবং মুখ্য আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রফেসর ড. মো: আবুল হোসেন, অর্থনীতি বিভাগ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন আর্চবিশপ মজেস এম. কস্তা সিএসসি, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন আর্চ ডায়োসিস, ইঞ্জিনিয়ার নওরিন সুলতানা উপাধ্যক্ষ, বাংলাদেশ কোরিয়া কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র চট্টগ্রাম, জনাব মহেন্দ্র চাকমা সহকারী পরিচালক বিভাগীয় কর্মসংস্থান ও জনশক্তি অফিস নাসিরাবাদ চট্টগ্রাম, বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি সংস্থার প্রতিনিধি ছাড়াও রাঙ্গুনিয়া, আনোয়ারা ও চন্দনাইশ প্রতারিত বিদেশ ফেরত অভিবাসী কর্মীগণ উপস্থিত ছিলেন।
কারিতাস স্মাইল প্রকল্পের প্রোগ্রাম অফিসার মোহাম্মদ এমদাদুল ইসলাম চৌধুরী সঞ্চালনায় উক্ত সংলাপ অনুষ্ঠানে মূল প্রতিপাদ্য বিষয়ের উপর প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন প্রকল্পের ইনচার্জ মি. শ্যামল মজুমদার। সংলাপ অনুষ্ঠানে বিভিন্ন উপজেলা হতে বিভিন্নভাবে হয়রানি এবং প্রতারণার শিকার বিদেশ ফেরত ব্যক্তিগণ তাদের অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরেন। আলোচনায় অংশ নেয়া বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যক্তিবর্গ অভিবাসী কর্মীদের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধির জন্য জাতীয় বাজেটে বরাদ্ধ বৃদ্ধি, প্রবাসী কল্যাণ ব্যাংকের ্ঋণ প্রবাহ সহজ করা এবং অভিবাসন খাতকে নিরাপদ করতে সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি উদ্যোগ বড়ানোর তাগিদ দেন।

আরো খবর

Leave a Reply