বাংলাদেশ, মঙ্গলবার, ২৫শে জুন, ২০১৯ ইং, ১১ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ।

চট্টগ্রাম থেকে আ.লীগের প্রথম হুইপ সামশুল হক চৌধুরী

প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদায় একাদশ জাতীয় সংসদের হুইপের দায়িত্ব পেলেন চট্টগ্রাম-১২ (পটিয়া) আসন থেকে নির্বাচিত সরকার দলীয় সংসদ সদস্য সামশুল হক চৌধুরী।

এর মধ্য দিয়ে চট্টগ্রাম জেলা থেকে প্রথমবারের মতো কেউ আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন জাতীয় সংসদে হুইপের দায়িত্ব পালনের সুযোগ পেলেন। সমশুল হক হুইপ হিসেবে দায়িত্ব পাওয়ায় উচ্ছসিত তাঁর নির্বাচনী এলাকাসহ বন্দর নগরীর মানুষ।

সংসদ সদস্য হিসেবে তিনি ইতোমধ্যেই সফলতার পরিচয় দিয়েছেন। পটিয়া থেকে টানা তিনবারের নির্বাচিত এ সংসদ সদস্যের জন্ম ১৯৫৭ সালের ২০ জুলাই চট্টগ্রাম জেলার পটিয়া উপজেলার রশিদাবাদ গ্রামে। শিক্ষা জীবনে তিনি চট্টগ্রাম কমার্স কলেজ থেকে বাণিজ্য বিভাগে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। ছাত্র জীবন থেকেই তিনি ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন। পরে আওয়ামী লীগের রাজনীতির অন্যতম নেতা চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ৩১ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন ১৯৮৭ সালে।

এরপর নবম, দশম ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নিজ এলাকা পটিয়া আসন থেকে নির্বাচিত হয়ে সংসদে পটিয়াবাসীর প্রতিনিধিত্ব করে আসছেন। সংসদে অন্যতম সক্রিয় এ নেতা বিভিন্ন সময় নৌ-পরিবহন, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা এবং পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ছিলেন।

ক্রীড়া সংগঠক হিসেবে পরিচি সামশুল হক চৌধুরী ১৯৯৮ সাল থেকে চট্টগ্রাম আবাহনীর মহসচিবের দায়িত্ব পালন করে আসছেন। এছাড়া ঢাকার শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের পৃষ্ঠপোষক, বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সদস্য, চট্টগ্রাম ক্রীড়া সংস্থার কার্যকরী সদস্য, এশিয়ান ফুটবল এসোসিয়েশন ইউকে’র প্রথম সহ-সভাপতির দায়িত্ব পালন করেছেন৷

সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর সামশুল হক চৌধুরী নিজ নির্বাচনী এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন কাজ করেছেন। প্রায় আড়াই হাজার কোটি টাকার উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নের মাধ্যমে তিনি পটিয়ার চেহারাই পাল্টে দিয়েছেন। তাই এবারও বিপুল ভোটে তাঁকে নির্বাচিত করেছেন পটিয়াবাসী। অন্যতম সফল এ রাজনীতিবিদ জাতীয় সংসদের হুইপ হিসেবেও যোগ্যতার প্রমাণ দেবেন বলে প্রত্যাশা আওয়ামী লীগ ও স্থানীয় জনগণের।

আরো খবর

Leave a Reply