মুস্তাক মুহাম্মদ’র হাওর অঞ্চলের মানুষের কবিতাগুচ্ছ- ১

  প্রিন্ট
(Last Updated On: মে ৩, ২০১৭)

 

কৃষকের তুলিতে

শুকনো মৌসুমে হাওরে সবুজ খেলা করে;

প্রাণ দোলে ধানের শীষের সাথে।

স্বপ্ন বুনি স্বপ্নবাজ মানুষেরা,

নব উদ্দোমে   বাঁচার আনন্দ অপার।

রোদে পুড়ি তবু ক্ষেত রাখি তাজা

স্বপ্ন- বাস্তবতা হয়ে নেমে আসে

ফসল তোলার মুহূর্তে

পুষ্টধানের মাথা নোয়ানো দৃশ্যটা

পৃথিবীর সবচেয়ে কারুকার্যময় দৃশ্য।

তারিখ: ০৩/০৫/২০১৭, বাঁকড়া পাঁচপোতা, যশোর।

 

বাঁধ ভেঙে গেলো

এবার হাওরের উর্বর মাটিতে

সোনালি ধানে ভরেছে ক্ষেত – কৃষকের মন।

হাতের কাচি দ্বিগুণে চলে

স্বপ্ন বোনা মানুষেরা স্বপ্ন দেখে

কিন্তু একি ! কাল বৈশাখী মুহূর্তে

কোথা থেকে নেমে এলো এত মেঘ!

বাঁধ ভেঙে গেলো – স্বপ্ন ভেঙে গেলো!

তারিখ: ০৩/০৫/২০১৭, বাঁকড়া পাঁচপোতা, যশোর।

 

বাঁধ ভাঙা পানির হাহাকার

হাওরে ক্ষেত ভরে গেছে ধান আর ধানে

আর কিছুদিন পরেই ঘরে উঠবে নতুন ধান;

ধানের শীষের সাথে নেচে উঠে কৃষকের প্রাণ।

নতুন ধানের সাথে কত যে স্বপ্ন বোনা

এখন শুধু গোলা ভরার জন্য তাড়া।

একি ! দক্ষিণের বাঁধ ভেঙে গেছে!!

চল চল প্রাণ যায় যাবে বাঁধ রাখতে হবে।

সারা রাত খুন্তা কুদাল মাটি কাটে আর কাটে

অবশেষে শেষ রাতে – সব শেষ!

পা ঢুকে গেছে ক্ষেতে!

আর পারলাম না…

এখন শুধু ক্লান্তি আর ক্লান্তি

হা করে চেয়ে থাকা পানির প্রবাহে

অবসর আর অবসর

দুচোখে বাঁধ ভাঙা পানির হাহাকার!

তারিখ: ০৩/০৫/২০১৭, বাঁকড়া পাঁচপোতা, যশোর।

আবার হাওরে স্বপ্ন বুনবো

আমরা হাওরবাসী,

ফসল তোলার মুহূর্তে

বাঁধ ভেঙে সব স্বপ্ন ধুলিরসাৎ!

যে চোখে স্বপ্ন দেখে ছিলাম

যে চোখে আজ সর্ষেফুল।

সব ডুবে গেছে

শুধু আমাদের কষ্ট ছাড়া।

পেটফোলা মাছ ভেসে

কালো বাতাস ভারী করছে।

তবু আমাদের এই যুদ্ধ থামবে না

যেমন থামেনি একাত্তরে;

আমরা বাংলার কৃষক

জরা মরা ক্ষরা ডুবা

আমরা করব জয়।

আবার ভরবে হাওরের

সোনালি  – রূপালি ফসলের ক্ষেত

আবার স্বপ্ন বুনবো

হাওরের উর্বর মাটিতে।

০ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password