দুই সাংবাদিককে পূনর্বহালে দৈনিক আজাদীর সামনে অবস্থান কর্মসুচি

  প্রিন্ট
(Last Updated On: অক্টোবর ১১, ২০১৮)

আজ বৃহস্পতিবার বিকেল পাঁচটা থেকে ফের
আজাদীতে অবস্থান কর্মসুচি ঘোষণা

সম্পূর্ণ অন্যায়ভাবে চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন-সিইউজের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও আজাদীর সিনিয়র রিপোর্টার সবুর শুভ ও অপর সিনিয়র রিপোর্টার ঋত্মিক নয়নকে চাকুরিচ্যুতি দুই সাংবাদিককে পূর্ণবহালের দাবিতে আজাদীর সামনে অবস্থান কর্মসুচি পালন করা হয়েছে। গতকাল বুধবার সন্ধ্যা ছয়টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত আজাদীর সামনে অবস্থান করে এ কর্মসুচি পালন করেন কয়েকশ’ সাংবাদিক। তাদের চাকুরিতে পূর্ণবহাল না করা পর্যন্ত লাগাতার কর্মসুচি পালন করা হবে বলে সমাবেশ থেকে ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।
চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি ও সংগ্রাম কমিটির আহবায়ক নাজিমুদ্দীন শ্যামলের সভাপতিত্বে সংগ্রাম কমিটির সদস্য সচিব মোহাম্মদ আলী ও সিইউজের সাধারণ সম্পাদক হাসান ফেরদৌসের সঞ্চালনায় অবস্থান কর্মসুচিতে বক্তব্য রাখেন, বিএফইউজের সহ-সভাপতি ও সংগ্রাম কমিটির সদস্য রিয়াজ হায়দার চৌধুরী, সিইউজের সাবেক সভাপতি ও সংগ্রাম কমিটির সদস্য শহীদ উল আলম, মোস্তাক আহমদ, এম নাসিরুল হক, এজাজ ইউসুফী, আবু তাহের মোহাম্মদ, চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সিনিয়র সহ-সভাপতি কাজী আবুল মনসুর ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদ, বিএফইউজের সাবেক যুগ্ম মহাসচিব তপন চক্রবর্তী, সিইউজের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ম. শামসুল ইসলাম, সিইউজের সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম ইফতেখারুল ইসলাম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আহমেদ কুতুব, নির্বাহী সদস্য উত্তম সেন গুপ্ত, টিভি ইউনিট প্রধান অনিন্দ্য টিটো, পূর্বদেশ ইউনিট প্রধান রতন কান্তি দেবাশিষ, কর্ণফুলী ইউনিট প্রধান মোহাম্মদ আলী পাশা, বিএফইউজের নির্বাহী কমিটির সদস্য আজহার মাহমুদ, সিইউজের সাবেক যুগ্ম সাধারণ স্বরুপ ভট্টাচার্য্য, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ফারুক তাহের, ১৯৮৫ সালে আজাদী থেকে চাকুরিচ্যুত আবদুস শুক্কুর, সিইউজের সদস্য শাহরিয়ার হাসান, কামাল উদ্দিন খোকন, মুজাহিদুল ইসলাম, মহরম হোসাইন, প্রতীম দাশ, মোস্তফা ইউসুফ প্রমুখ।
মতবিনিময় সভায় বক্তারা বলেন, চট্টগ্রামের সাংবাদিকতায় মীর জাফর আজাদীর বার্তা সম্পাদক একেএম জহুরুল ইসলাম। তিনি আজাদীতে কর্মরত সাংবাদিকদের কথায় কথায় চাকুরিচ্যুতির হুমকি দিয়ে আসছেন। বুধবার আজাদীতে কর্মরত সকল সাংবাদিককে হুমকি দিয়ে বিকেল পাঁচটায় অফিসে ঢুকিয়ে তালাবদ্ধ করে রাখেন। আজাদীর ৫৯ বছরের ইতিহাসে দরজায় তালা লাগিয়ে এভাবে সাংবাদিকদের অবরুদ্ধ করে কাজ করানোর নজির নেই। কিন্তু সেই ঘৃন্য কাজটিও করেছেন জহুরুল ইসলাম।
সভায় বক্তারা আরো বলেন, এখনো আলোচনার দরজা খোলা রয়েছে। আজাদী সম্পাদককে আলোচনায় বসে সৃষ্ট সমস্যা সমাধানের আহবান জানান। অন্যথায় ১৩ অক্টোবর চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে ওয়েজবোর্ড বাস্তবায়ন কমিটির সভায় তাকে অবাঞ্চিত ঘোষণা করবে চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন। তার বাসভবনও ঘোরাও কমসুচি ঘোষণা করতে বাধ্য হবে চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন।

০ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password