বাংলাদেশ, মঙ্গলবার, ২৩শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং, ১০ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ।

সাহিত্যিক সৈয়দ মো: হাশেমের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

 

আজ ২৯ আগস্ট বুধবার সাহিত্যিক সৈয়দ মোহাম্মদ হাশেমের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী। ২০০০ সালের এই দিনে তিনি চমেক হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। নিভৃতচারী সাহিত্যিক হাশেম ছিলেন মরহুম কবি ওহীদুল আলমের জ্যেষ্ঠ জামাতা ও দৈনিক চট্টগ্রাম মঞ্চ’র সম্পাদক সৈয়দ উমর ফারুক’র পিতা। বাংলাদেশ ডাক বিভাগে তিনি দীর্ঘদিন নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করার পাশাপাশি সাহিত্য চর্চা করেছেন।
ষাটের দশকে সাহিত্যাঙ্গনে সাহিত্যিক হাশেমের উপস্থিতি সকলের নজর কাড়ে। তৎকালীন কোহিনুর আর্ট প্রেস কেন্দ্রিক আড্ডায় এদেশের বিখ্যাত সাহিত্যিকদের সাথে নিভৃতচারী এই সাহিত্যিকের নিয়মিত যোগাযোগ ছিল। সেই সূত্রে কথা সাহিত্যিক শওকত ওসমানের সাথে তাঁর হৃদ্যতা গড়ে উঠে। গল্প, কবিতা, নাটক, জীবন টিকা, উপন্যাসসহ সাহিত্যের প্রায় প্রতিটি শাখায় সৈয়দ মোহাম্মদ হাশেমের বিচরণ রয়েছে। তাঁর রচিত বইয়ে’র মধ্যে রানার, রাঙ্গমাটির পথে, মলিহার চিঠি ও এ যুগের প্রেম সে সময় দুই বাংলায় আলোড়ন সৃষ্টি করে। সাহিত্যিক মাহবুব উল আলম সম্পাদিত তৎকালীন দৈনিক জমানায় একদা কল্লোল নামে একটি নিয়মিত কলাম লিখে তিনি পাঠক সমাদৃত হন। এছাড়া ওই দৈনিকে তিনি অবসর জীবনে সাংবাদিকতায় নিয়োজিত হন। ‘নব চেতনা’ নামে একটি মাসিক ম্যাগাজিন সম্পাদনা করে তিনি প্রকাশনা জগত কে সমৃদ্ধ করেন। তিনি মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক নাটক রচনা করে সাহিত্যাঙ্গনে সাড়া জাগান।
প্রচার বিমুখ সাহিত্যিক সৈয়দ মোহাম্মদ হাশেমের জন্ম ১৯২৪ সালে চান্দগাঁও থানাধীন সৈয়দ নুরুজ্জামান নাজির বাড়িতে। তার পিতা রুহুল আমীনও সাহিত্যানুরাগী ছিলেন। মরহুমের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে মরহুমের বাড়িতে খতমে কোরান ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে।

আরো খবর

Leave a Reply