বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের ইতিহাসের বটবৃক্ষ

  প্রিন্ট
(Last Updated On: আগস্ট ২০, ২০১৮)

বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের চট্টগ্রাম মহানগরের উদ্দেগে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং তার পরিবারের সদ্যসদের ৪৩ তম শাহদাত বার্ষিকী এবং ২১ শে আগষ্ট গ্রেনেট হামলার নিহত এবং আহতদের স্মরনে আয়োজিত আলোচনা সভায় গতকাল বিকালে জেলা পরিষদ মিলনায়তনে কমিটির আহবায়ক সফিউল আজম বাহারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন মহানগর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহাতাব উদ্দিন চৌধুরী, বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্ত্যব রাখেন মহানগর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক নোমান আল মাহমুদ, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মশিউর রহমান চৌধুরী, প্রধান আলোচক ছিলেন সংগঠনের কেন্দ্রিয় কমিটির সাধারন সম্পাদক জি,এস.এম কাজল।
সভায় বক্তারা বলেন, বাংলাদেশের প্রতিটি ধূলিকণাতে মিশে আছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাম। বাংলাদেশ এবং বঙ্গবন্ধু একটি অভিন্ন নাম। বঙ্গবন্ধু বাংলার ইতিহাসের বটবৃক্ষ। বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে কখনো স্বাধীন বাংলাদেশের জন্ম হতো না। তিনিই বাঙালি জাতিকে পরাধীনতার শেকল থেকে মুক্তি দিয়েছেন। একটি জাতির জাতীয় পতাকা, জাতীয় সঙ্গীত, জাতীয় ভাষা এবং জাতীয় পরিচয় বঙ্গবন্ধুর কালজয়ী সংগ্রামের ফসল। তাই বঙ্গবন্ধু মানে বাংলাদেশ, আর বাংলাদেশ মানেই বঙ্গবন্ধু।
আগামীর জন্য প্রস্তুত হতে তরুণ প্রজন্মকে আহ্বান জানিয়েছেন বক্তারা বলেন, আগামীর বাংলাদেশ হবে ক্ষুধামুক্ত, দারিদ্র্যমুক্ত সোনার বাংলাদেশ, এর জন্য সবাইকে প্রস্তুত থাকতে হবে।
মহানগর কমিটির সদ্যস সচিব ড. সজিব তালুকদারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন কমিটির সহ-সভাপতি কাউন্সিলর জাহাঙ্গীর আলম, সুলতানা এম. চিস্তি লায়ন হোসেন মুন্না, যুব ও ক্রীয়া সম্পাদক মো. ইব্রহীম, মাহফুজুর রহমান, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মশিউর রহমান। আহবায়ক কমিটির যুগ্ন আহবায়ক এড.ইকবাল জাহেদুল হাসান, সদস্য বিন্দ সঞ্জয় বড়–য়া, দস্তগীর সুমন, এড. মোশারফ বায়েজিদ, নোমান মাহমুদ, মো. হাবিব, বিবি ফাতেমা, দুর্বার বড়–য়া, দীবেশ বড়–য়া, অমল দে, ইয়াসিন আরমান প্রমুখ

০ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password