১/১১ কুশিলবরা ষড়যন্ত্র শুরু করেছে – কাদের

  প্রিন্ট
(সর্বশেষ আপডেট: জুন ১৯, ২০১৮)

 সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ১/১১ কুশীলবরা আবারো নতুন করে ষড়যন্ত্র শুরু করেছে।
তিনি বলেন, ‘নির্বাচনকে ঘিরে ওয়ান ইলেভেনের কুশীলবদের নিয়ে বিএনপি এবার সক্রিয়। তারা ষড়যন্ত্র করছে। তারা মনে করছে, আমরা জানি না। সব খবরই জানা আছে। এবার কোনও ষড়যন্ত্র টিকবে না। দেশের জনগণ প্রতিহত করবে।’
ওবায়দুল কাদের আজ মঙ্গলবার দুপুরে ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক যৌথসভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন।
আওয়ামী লীগের সম্পাদকমণ্ডলীর সঙ্গে সহযোগী সংগঠনের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক এবং ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকদের সাথে এই যৌথসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন ওবায়দুল কাদের।
‘ওয়ান ইলেভেনের কুশীলবরা এবার সক্রিয় হয়েছে, এ ব্যাপারে আওয়ামী লীগ কী ভাবছে’এমন প্রশ্নের জবাবে দলের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘আছে, কথাতো থাকতেই পারে, থাইল্যান্ডের বৈঠক। আরও অনেক জায়গায় তারা (বিএনপি) ঘুরে বেড়াচ্ছে। ঢাকাতেও এখানে-ওখানে গভীর রাতে বৈঠক চলছে। তারা মনে করছে, আমরা জানি না। সব খবরই জানা আছে। এবার কোনো ষড়যন্ত্র টিকবে না।’
ওবায়দুল কাদের বলেন, আগামী নির্বাচনে বিএনপি অংশ নেবে কিনা, তা নিয়ে আমাদের কোনও মাথাব্যথা নেই। বিএনপির নির্বাচনে আসার পথে আওয়ামী লীগ বাঁধা নয়। তাদের কোনো ষড়যন্ত্রই নির্বাচন ঠেকাতে পারবে না।
তিনি বলেন, সাংবিধানিক ধারাকে রক্ষা করতে হলে নির্বাচন করতে হবে। সে নির্বাচনে অংশ নেবে, কি নেবে না- সেটা বিএনপির ব্যাপার। এ বিষয়ে আমাদের কিছুই বলার নেই।
বিএনপি নির্বাচনে না আসলে সরকার কী করবে- এমন প্রশ্নের জবাবে সেতুমন্ত্রী বলেন, কোনো গণতান্ত্রিক দেশে বিরোধী দলকে কি সরকার নির্বাচনে ডেকে আনে? তারা নিজেদের গণতান্ত্রিক দল দাবি করে আর নির্বাচনে আসে না- এটা তাহলে কী? বিএনপি নির্বাচনে আসবে কিনা- সেটা তাদের ব্যাপার। এটা তাদের গণতান্ত্রিক অধিকার। এটা সুযোগ নয়।
খালেদা জিয়ার সিএমএইচে ভর্তির প্রসঙ্গে কাদের বলেন, তারা নির্বাচনে সেনাবাহিনী চায়। কিন্তু সেনাবাহিনীর হাসপাতালে তাদের অনীহা। সিএমএইচের চেয়ে ভালো হাসপাতাল আছে বলে আমার জানা নাই।
সভায় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, ডা. দীপু মনি ও আব্দুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী ও এ কে এম এনামুল হক শামীম, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আফজাল হোসেন, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, বন ও পরিবেশ সম্পদক দেলোয়ার হোসেন, উপ-দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়াসহ সহযোগী ও ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ নেতারা উপস্থিত ছিলেন।বাসস

০ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password