ট্রেন, বাস ও লঞ্চ টার্মিনালে ঘরমুখো মানুষের ভিড়

  প্রিন্ট
(সর্বশেষ আপডেট: জুন ১৪, ২০১৮)

আজ বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই ট্রেন, বাস ও লঞ্চে ছিল ঈদে বাড়ি ফেরা মানুষের ভিড়। বেলা বাড়ার সাথে সাথে বারছে ভিরের পরিমান। এতে ভোগান্তিতে পরছেন ঘরমুখো যাত্রীরা। এছাড়াও ভোগান্তির সাথে সাথে যাত্রীদের গুনতে হচ্ছে বাড়তি টাকাও।

সকালে কমলাপুর ও বিমানবন্দর রেলস্টেশনে ছিল বাড়ি ফেরা মানুষের উপচেপড়া ভিড়। বাড়ি ফিরতে ট্রেনের ভেতরে জায়গা না পেয়ে অনেককেই উঠতে দেখা গেছে ট্রেনের ছাদে। ঈদ উপলক্ষে আসন ক্ষমতার তিনগুণ যাত্রী যাচ্ছে ট্রেনে। এছাড়াও সিডিউল বিপর্যয়তো আছেই। ঈদ উপলক্ষে চালু করা বিশেষ ট্রেনের ক্ষেত্রে বিপর্যয়ের ঘটনা বেশি ঘটছে।

জানা গেছে, ঈদ উপলক্ষে গত ১০ জুন থেকে যাত্রা শুরু করেছেন অগ্রিম টিকিট কাটা যাত্রীরা। কিন্তু গতকাল থেকে বিভিন্ন ট্রেনের সিডিউল বিপর্যয় ঘটেছে। প্রায় ট্রেনই দেড় থেকে দুই ঘণ্টা পযর্ন্ত দেরিতে চলাচল করছে। আজ বৃহস্পতিবার ও আগামীকাল এই ভোগান্তি আরও বাড়বে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

আজ সকালেও অনেক ট্রেন নির্দিষ্ট সময়ের ২০-৩০ মিনিট দেরি করে ছেড়ে গেছে।

রেলপথ সচিব মো. মোফাজ্জেল হোসেন জানান, রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের কাছে যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা সবচেয়ে জরুরি। এক ঘণ্টা কিংবা ৩০ মিনিট বিলম্বে ট্রেন চলাচল করাটাকে খুব একটা দুর্ভোগ বলা যাবে না। যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে গিয়ে নির্ধারিত গতির চেয়ে কমগতিতে ট্রেন চালাতে হচ্ছে। তা ছাড়া প্রতিটি ট্রেনই অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে চলাচল করছে। এক একটি স্টেশনে নির্ধারিত যাত্রার চেয়ে অতিরিক্ত সময় দিতে হচ্ছে। প্রচণ্ড ভিড়ে যাত্রীদের ওঠানামায় বেশি সময় লাগছে।

সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালে ইউনিক পরিবহনের ম্যানেজার নাসির উদ্দিন বলেন, সকালে যাত্রীর বেশি চাপ ছিল। দুপুরে তেমন যাত্রী নেই। তবে রাতে চাপ বাড়বে।

তিনি আরও বলেন, পর্যাপ্ত গাড়ি রয়েছে। সঠিক সময় ঢাকা ছেড়ে যাচ্ছে গাড়িগুলো। তবে ঈদযাত্রায় মূল সমস্যা হয় মহাসড়কে যানজট থাকলে। এখন পর্যন্ত সব ঠিক আছে। সামনের দুই দিন যানজট না থাকলে আশা করি কোনো ঝামেলা হবে না।

এদিকে ভোর ৫টা থেকেই ঘাট থেকে লঞ্চগুলো ছেড়ে যাওয়ার কথা থাকলেও অধিকাংশ লঞ্চেই দেরিতে ছেড়েছে বলে অভিযোগ করেছেন যাত্রীরা।

এ বিষয়ে বিআইডব্লিউটিএ কর্তৃপক্ষ জানায়, ঈদযাত্রায় বিশেষ করে বুধবার নির্ধারিত সময়ে লঞ্চ ছেড়েছে। আজও নির্ধারিত সময়ে লঞ্চ ছেড়েছে। শুক্রবারও রুটিন মেনেই লঞ্চ ছাড়বে।

০ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password